ঠাকুরগাঁওয়ের রাণীশংকৈলে উম্মুক্ত বিশ্ববিদ্যালয়ের পরীক্ষা হয় উম্মুক্তভাবেই

মঙ্গলবার, ১৪ মে ২০১৯ | ৯:২২ অপরাহ্ণ |

ঠাকুরগাঁওয়ের রাণীশংকৈলে উম্মুক্ত বিশ্ববিদ্যালয়ের পরীক্ষা হয় উম্মুক্তভাবেই
অনলাইন ছবি

ঠাকুরগাঁওয়ের রাণীশংকৈলে উম্মুক্ত বিশ্ববিদ্যালয়ের পরীক্ষা হয় উম্মুক্তভাবেই। বিগত বেশ কয়েক বছর থেকেই এই অবস্হা চলে আসছে। পরীক্ষার আগেই পরীক্ষার্থীদের কাছে এ উম্মুক্ততা ধামাচাপার জন্য কেন্দ্রকমিটি মোটা অংক কালেকশন করে এবং সংশ্লিষ্টদের ম্যানেজ করেন বলে অভিযোগ রয়েছে।

ঠাকুরগাঁওয়ের রানীশংকৈল বিএম কলেজে বাংলাদেশ উন্মুক্ত বিশ্ববিদ্যালয়ের ১ম ও ২য় বর্ষের পরীক্ষা কেন্দ্রের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা হাসান আলী নবাবকে অব্যাহতি দেওয়ার পর এবার বিষয়টি নিয়ে বাউবি’র শিক্ষা বোর্ড কর্তৃক তদন্ত হয়েছে।

মঙ্গলবার (১৪ মে) বাংলাদেশ উন্মুক্ত বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষা বোর্ডের উপ-পরিচালক (প্রশাসন) আব্দুল্লাহ আল কাফি এ তদন্ত করে।

তদন্ত শেষে আব্দুল্লাহ আল কাফি বলেন, আমি তদন্ত করেছি, এ তদন্তের প্রতিবেদন বোর্ডে গিয়ে জমা দিবো। তারপর যথাযথ ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

এর আগে শুক্রবার (১১ মে) ঠাকুরগাঁওয়ে উন্মুক্ত বিশ্ববিদ্যালয়ের (বাউবি) অধীনে এইচএসসি পর্যায়ের ১ম বর্ষের পরীক্ষায় রানীশংকৈলের একটি পরীক্ষা কেন্দ্রে দেখা গেছে- কারও সামনে বইয়ের ছেঁড়া পাতা, কারও সামনে পুরা বই খোলা। তা দেখে উত্তরপত্রে লিখছে পরীক্ষার্থীরা।

উন্মুক্ত বিশ্ববিদ্যালয়ের অধীনে উচ্চমাধ্যমিক পর্যায়ে গত ২৬ এপ্রিল পরীক্ষা শুরু হয়। উন্মুক্ত বিশ্ববিদ্যালয় কেন্দ্র সূত্রে জানা গেছে, এ বছর উন্মুক্ত বিশ্ববিদ্যালয়ের অধীনে এই কেন্দ্রে ৪৯৪ জন পরীক্ষার্থী অংশগ্রহণ করেছে।

পরীক্ষার্থীরা অবাধে বইয়ের পাতা বেঞ্চের ওপরে রেখে তা দেখে উত্তরপত্রে উত্তর লিখছে। আবার কেউ পুরো বইটাই বেঞ্চের ওপর রেখে উত্তরপত্রে উত্তর লিখছে। কোথাও আবার একজন পরীক্ষার্থীর সামনে থাকা বইয়ের পাতা দেখে কয়েকজন পরীক্ষা লিখছে। কিন্তু দায়িত্বপ্রাপ্ত শিক্ষকদের তা প্রতিরোধে তেমন কোনো তৎপরতা দেখা যায়নি।

পরবর্তীতে গত ১০ মে শুক্রবার তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি বিষয়ের পরীক্ষায় পরীক্ষা কেন্দ্রে গেলে একই দৃশ্যের দেখা মেলে। পরীক্ষার কেন্দ্রে এই প্রতিবেদককে ঢুকতে দেখে কেন্দ্রে পরিদর্শকের দায়িত্বে থাকা কয়েকজন শিক্ষক এগিয়ে আসেন। সে সময় কেন্দ্র সচিব মোঃ হাসান আলী নবাব বলেন, ‘আসুন অফিস কক্ষে বসে বিষয়টি নিয়ে আলোচনা করি।’

উল্লেখ্য, রানীশংকৈলে উন্মুক্ত পরীক্ষায় উন্মুক্ত নকল খবর প্রকাশের পর ১৩ মে পরীক্ষা কেন্দ্র কমিটির সভাপতি ইউএনও মৌসুমী আফরিদা তড়িৎ গতিতে ঐ কেন্দ্রর ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা বিএম কলেজের অধ্যক্ষ হাসান আলী নবাবকেসহ পাঁচ সদস্য বিশিষ্ট কেন্দ্র কমিটির আরো দুই সদস্যকে অব্যাহতি দেয়।

পরে ঐ কলেজে সহকারী অধ্যাপক আব্দুল কাদিরকে ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা হিসাবে নিয়োগ দিয়ে নতুন কমিটি করা হয়। ইউএনও’র পরে এবার শিক্ষা বোর্ড কর্তৃক নকলের মাধ্যমে পরীক্ষার বিষয়টি নিয়ে তদন্ত হলো।

তবে ইউএনও মেীসুমী আফরিদা এ বিষয়ে আর কোন পদক্ষেপ না নিয়ে এবং তদন্ত কমিটি না করে বিষয়টি ধামাচাপা দেওয়ার পায়তারা করছেন বলে অভিযোগ স্থানীয় গণমাধ্যমকর্মীদের।

 

মন্তব্য করতে পারেন...

comments

ঠাকুরগাঁও প্রেসক্লাবের সাধারন সম্পাদকসহ দুইজনকে কুপিয়ে জখম,আটক-১

কলেজপাড়া,মাজার রোড,ঠাকুরগাঁও-৫১০০, বার্তা বিভাগ-01763234375 অথবা 01673974507, ইমেইল- sangbadgallery7@gmail.com
প্রধান কার্যালয়ঃ বঙ্গবন্ধু সড়ক, আধুনিক সদর হাসপাতাল সংলগ্ন, বাসস্ট্যান্ড, ঠাকুরগাঁও-৫১০০

2012-2016 কপি রাইট আইন অনুযায়ী সংবাদ-গ্যালারি.কম এর কোন সংবাদ ছবি ভিডিও কর্তৃপক্ষের অনুমতি ছাড়া অন্য কোথায় প্রকাশ করা আইনত অপরাধ

Development by: webnewsdesign.com