নড়াইলে মেডিকেল অফিসারের ভুল চিকিৎসা ! ৭মাসের গর্ভের সন্তানের মৃত্যু!!

বৃহস্পতিবার, ২৭ জুন ২০১৯ | ৯:৪৫ অপরাহ্ণ |

নড়াইলে মেডিকেল অফিসারের ভুল চিকিৎসা ! ৭মাসের গর্ভের সন্তানের মৃত্যু!!
প্রতিকী ছবি

বৃহস্পতিবার (২৭ জুন) নড়াইলে কমিউনিটি মেডিকেল অফিসারের ভুল চিকিৎসায় মুসলিমা বেগম নামের এক গর্ভবর্তীর ৭মাসের সন্তানের মৃত্যুর অভিযোগ উঠেছে।নড়াইল সদর হাসপাতালে তার মৃত সন্তান সিজার করা হয়। ভূক্তভোগী মা নড়াইল সদর হাসপাতালে চিকিৎসাধীন। অভিযুক্ত চিকিৎসক মোঃ ইয়ানুর রহমান নড়াইল সদরের গোবরা উপ-স্বাস্থ্য কেন্দ্রে উপসহকারী কমিউনিটি মেডিকেল অফিসার (স্যাকমো) হিসেবে কমরত।

মুসলিমা বেগমের স্বামী মোহাম্মদ তুহিন ঢাকায় একটি বেসরকারী অফিসের ড্রাইভার হিসেবে কর্মরত। তার বাড়ি নড়াইল সদরের রঘুনাথপুর গ্রামে। গর্ভবতীর স্বামী মোহাম্মদ তুহিন জানায়, গত ৮ জুন গর্ভবতী স্ত্রী মুসলিমা বেগম তার মায়ের সাথে সদর হাসপাতালে চিকিৎসা নিতে আসলে দালালের খপ্পরে পড়ে হাসপাতালের সামনে টাউন মেডিকেলে ইয়ানুর রহমানের চেম্বারে আসেন। সেখানে রোগির পরীক্ষা করে কতগুলো টেস্টসহ ব্যবস্থাপত্র দেন। এর কয়েকদিন পরে গর্ভবতী স্ত্রীর ভিতরে শিশুর নড়াচড়া বন্ধ হয়ে গেলে গত শনিবার তাকে সদর হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। বুধবার (২৬ জুন) আল্ট্রাসোনো রিপোর্টে দেখা যায় গর্ভের শিশুর মৃত্যু ঘটেছে। তিনি বলেন, ডাক্তার নামধারী ঐ ইয়ানুর রহমান যে ঔষুধ লিখেছে তার মধ্যে ফ্রুলাক নামের একটি ঔষুধ দেয়ায় গর্ভের সন্তান মারা গেছে। তিনি এর বিচারের দাবিতে পুলিশ সুপারের কাছে যান। এ ঘটনায় তিনি আদালতে মামলার প্রস্তুতি নিচ্ছেন বলে জানান।

নড়াইল সদরহাসপাতালের গাইনী বিশেষজ্ঞ ডা.মিনা হুমায়ুন কবীর জানান,ঐ চিকিৎসক যে ঔষুধ লিখেছেন তার মধ্যে একটি ঔষুধ শিশুর বেঁচে থাকার জরুরী ফ্লুইড প্রশ্রাবের সাথে বের করে দেয়। পানিশ‚ন্য হবার ফলে শিশুর মৃত্যু ঘটে থাকতে পারে বলে তার ধারনা।

এ ব্যাপারে নড়াইলের সিভিল সার্জন ডা.মো. আসাদ-উজ-জামান মুন্সী জানান,ঐ স্যাকমো চিকিৎসকের বিরুদ্ধে প‚র্বে এ ধরনের আরও অভিযোগ পাওয়া গেছে। গাইনী রোগী চিকিৎসা দেবার তার কোন এখতিয়ার নেই। ভুক্তভোগি পরিবার আমার কাছে এসেছিল। লিখিত অভিযোগ পেলে মেডিকেল বোর্ড গঠন কওে তার বিরুদ্ধে বিভাগীয় আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হবে।

এ ব্যাপারে অভিযুক্ত চিকিৎসক মো.ইয়ানুর রহমান এ প্রতিনিধি উজ্জ্বল রায়কে জানান, গর্ভবতী ওই মহিলার প্রেসার এবং রক্ত শুন্যতা ছিল। এছাড়া তার পায়ে অতিরিক্ত পানি থাকার কারণে তাকে ফ্রুলাক দেওয়া হয়। আমার জানা বোঝা মতে এ ওষুধের কারণে তার মৃত্যু ঘটেনি।

মন্তব্য করতে পারেন...

comments

ঠাকুরগাঁও প্রেসক্লাবের সাধারন সম্পাদকসহ দুইজনকে কুপিয়ে জখম,আটক-১

কলেজপাড়া,মাজার রোড,ঠাকুরগাঁও-৫১০০, বার্তা বিভাগ-01763234375 অথবা 01673974507, ইমেইল- sangbadgallery7@gmail.com
প্রধান কার্যালয়ঃ বঙ্গবন্ধু সড়ক, আধুনিক সদর হাসপাতাল সংলগ্ন, বাসস্ট্যান্ড, ঠাকুরগাঁও-৫১০০

2012-2016 কপি রাইট আইন অনুযায়ী সংবাদ-গ্যালারি.কম এর কোন সংবাদ ছবি ভিডিও কর্তৃপক্ষের অনুমতি ছাড়া অন্য কোথায় প্রকাশ করা আইনত অপরাধ

Development by: webnewsdesign.com