কিশোর-কিশোরীদের উন্নত স্বাস্থ্যসেবা আর প্রজনন স্বাস্থ্য সমস্যা–ডাঃ রেজিনা খাতুন

সোমবার, ১১ মে ২০২০ | ৮:০৪ অপরাহ্ণ |

কিশোর-কিশোরীদের উন্নত স্বাস্থ্যসেবা আর প্রজনন স্বাস্থ্য সমস্যা–ডাঃ রেজিনা খাতুন
ডাঃ রেজিনা খাতুন

বাংলাদেশে রয়েছে তিন কোটি ৬০ লাখ কিশোর-কিশোরী বয়ঃসন্ধি এমন একটা পর্যায় যখন একটি শিশু একজন প্রাপ্তবয়স্ক মানুষ হয়ে ওঠে। এ সময়ই মানুষের মধ্যে প্রজনন ক্ষমতা তৈরী হয়।

এই সময়ে ছেলে-মেয়ের মধ্যে বড় ধরনের শারীরিক ও মানসিক পরিবর্তন আসে, যে কারণে তাদের প্রতি বিশেষ মনোযোগ দিতে হয়। গবেষণায় দেখা গেছে, বয়ঃসন্ধিকালীন সেবা নিশ্চিতের পাশাপাশি তাদের সক্ষমতা বিকাশের সুযোগ করে দেওয়ার মতো নীতি গ্রহণ করা গেলে এই ছেলে-মেয়েরা দারিদ্র্য, বৈষম্য ও সহিংসতার চক্র ভেঙে ফেলতে পারে।


বাংলাদেশে তিন কোটি ৬০ লাখ কিশোর-কিশোরী রয়েছে, যারা এদেশের মোট জনসংখ্যার ২২ শতাংশ। তারপরেও তাদের উপযোগী করে সেবার ব্যবস্থা করার চিন্তা এখনও ততটা গুরুত্ব পায় না।

এ বিষয়ে জরুরি পদক্ষেপ গ্রহণের প্রয়োজনীয়তা দিন দিন বাড়ছে। বাল্য বিয়ের উচ্চ হারের কারণে বাংলাদেশে বয়ঃসন্ধিকালেই অনেক মেয়ে গর্ভধারণ, সহিংসতা ও অপুষ্টির ঝুঁকিতে থাকে। বর্তমানে ২০ থেকে ২৪ বছর বয়সী নারীদের মধ্যে ৫৩ শতাংশেরই বিয়ে হয়েছে ১৮ বছর বয়সের আগে।

এই বয়সের ছেলে-মেয়ে এবং তাদের পরিবারের সদস্যদেরও স্বাস্থ্য সেবা সম্পর্কে সচেতনতার ঘাটতি থাকে। প্রজনন স্বাস্থ্য, পুষ্টি, মানসিক ও সামাজিক বিষয়ে কাউন্সেলিং ইত্যাদির মতো বিষয়ে তারা অবগত নন।

এই অবস্থার কারণে বাংলাদেশে অনেক নবজাতকের মৃত্যু হয়। আবার সন্তান প্রসবের পর মা ও শিশু রোগাক্রান্ত হন। বাংলাদেশে বয়ঃসন্ধিকালের তিনজন মেয়ের মধ্যে একজনই রুগ্ন।আর মেয়েদের ১১ শতাংশই অনেক বেশি রোগা-পাতলা। তাদের অধিকাংশেরই জিংক, আয়োডিন ও আয়রনের মতো অনু পুষ্টির ঘাটতি রয়েছে।

বৈশ্বিকভাবে দেখা গেছে, পরিণত বয়সের মায়ের গর্ভে সন্তানের মৃত্যুর ঘটনার দ্বিগুণ ঘটে ২০ বছরের কম বয়সীদের ক্ষেত্রে।বাংলাদেশে ২০ বছরের কম বয়সী মায়েদের প্রতি ১০০০ জীবিত জন্মে জন্মদানে ৩১ জনের মৃত্যু হয়।

২০ বছরের বেশি বয়সী নারীদের গর্ভধারণ বা সন্তান প্রসবের সময় মৃত্যুর ঘটনার দ্বিগুণ ঘটে ১৫ থেকে ১৯ বছর বয়সীদের ক্ষেত্রে, এই হার পাঁচ গুণ হয় ১৫ বছরের কম বয়সী মেয়েদের ক্ষেত্রে।

আমাদের দেশে যৌন শিক্ষা ও প্রজনন স্বাস্থ্য নিয়ে কথা বলা বিশেষ করে স্কুলে ও পরিবারে প্রায় নিষিদ্ধ বলা যায়। স্কুলের পাঠ্য বইয়েও সযত্নে এই বিষয়টি এড়িয়ে যাওয়া হয়েছে। এই অবস্থার পরিবর্তন দরকার। কারণ, যৌন ও প্রজনন স্বাস্থ্য ও অধিকার হলো মানবাধিকার।

২০২০-২০৩০-এর টেকসই উন্নয়ন লক্ষ্যমাত্রায় যৌন শিক্ষা ও প্রজনন স্বাস্থ্য ও অধিকারের বিষয়টি সরাসরি যুক্ত। সমাজে ও অর্থনীতিতেও এর প্রভাব রয়েছে। তাই যৌনশিক্ষা ও প্রজনন স্বাস্থ্য ও অধিকার বিষয়ে জ্ঞান বৃদ্ধিও মাধ্যমে আমরা পরিবার-পরিকল্পনা, মা ও শিশুর স্বাস্থ্য নিশ্চিত করতে পারব।

রবীন্দ্রনাথের ছোট গল্প ‘ছুটির’ প্রধান চরিত্র ফটিক সম্পর্কে বলা হয়েছিল ” বিশেষত, তেরো-চৌদ্দ বৎসরের ছেলের মতো পৃথিবীতে এমন বালাই আর নাই। সেও সর্বদা মনে মনে বুঝিতে পারে, পৃথিবীর কোথাও সে ঠিক খাপ খাইতেছে না, এইজন্য আপনার অস্তিত্ব সম্বন্ধে সর্বদা লজ্জিত ও ক্ষমাপ্রার্থী হইয়া থাকে”। এই না ছোট্ট না বড় গুরুত্বপূর্ণ কৈশোরকে পারিবারিক, সামাজিক, সরকারি ও বেসরকারি সমন্বিত উদ্যোগে পরবর্তী বিশ্ব নাগরিক হিসাবে গড়ে তুলতে হবে । তার মাধ্যমে উন্নত দেশ হিসেবে আমাদের অবস্থান নিশ্চিত হবে।

ডাঃ রেজিনা খাতুন
উপদেষ্টা দি ব্লু স্কাই চেরিটেবল ফাউন্ডেশন,

ঢাকা।

আপনার মুল্যবান মতামত দিন......

comments



স্তন ক্যান্সারের কারন,প্রতিকার ও প্রতিরোধ-আয়েশা সিদ্দিকা শেলী

প্রধান কার্যালয়: শিমুল লজ, ১২/চ/এ/২/৪ (২য় তলা), রোড নং ৪, শেরেবাংলা নগর,শ্যামলী,ঢাকা‌.
বার্তা বিভাগ-01763234375 অথবা 01673974507, ইমেইল- sangbadgallery7@gmail.com

আঞ্চলিক কার্যালয়: বঙ্গবন্ধু সড়ক, আধুনিক সদর হাসপাতাল সংলগ্ন, বাসস্ট্যান্ড, ঠাকুরগাঁও-৫১০০

2012-2016 কপি রাইট আইন অনুযায়ী সংবাদ-গ্যালারি.কম এর কোন সংবাদ ছবি ভিডিও কর্তৃপক্ষের অনুমতি ছাড়া অন্য কোথায় প্রকাশ করা আইনত অপরাধ

Development by: webnewsdesign.com