নড়াইলে ৫৫৫টি দূর্গা পূজা মন্ডপে দেবীর আগমনে ঢাক কাশী শঙ্খরধ্বনীতে মুখরিতের অপেক্ষায়: নিরাপত্তার বেষ্টনি

বৃহস্পতিবার, ০৩ অক্টোবর ২০১৯ | ৬:১২ অপরাহ্ণ |

নড়াইলে ৫৫৫টি দূর্গা পূজা মন্ডপে দেবীর আগমনে ঢাক কাশী শঙ্খরধ্বনীতে মুখরিতের অপেক্ষায়: নিরাপত্তার বেষ্টনি
সনাতন ধর্মাবলম্বীদের শারদীয় দুর্গোৎসবের শুরু হবে ৪ অক্টোবর থেকে

সনাতন ধর্মাবলম্বীদের শারদীয় দুর্গোৎসবের শুরু হবে ৪ অক্টোবর থেকে। এরই মধ্যে মন্ডপ গুলোতে শেষ হয়েছে প্রতিমা তৈরির কাজ। এখন চলছে শেষ প্রস্তুতি। তুলির আঁচড়ে দেবী দুর্গাকে মূর্তি করে তোলার চেষ্টায় প্রতিমা শিল্পীরা। ঢাক কাশীর বাজনা, শঙ্খধ্বনি আর আরতিতে মুখরিত হওয়ার অপেক্ষায় প্রতিটি গ্রামের মন্দির-মন্ডপগুলো। শারদীয় উৎসব পালনে সনাতন ধর্মাবলম্বীদের মাঝে বইছে উৎসবের আমেজ। দুর্গা দেবীর আগমনে প্রতিবারের ন্যায় এবছরও প্রতিটি মন্দিরে নানা অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়েছে। আগামী ৪ অক্টোবর দেবীর বোধনের মাধ্যমে শুরু হবে পূজার আনুষ্ঠানিক কার্যক্রম। ৪ অক্টোবর ষষ্ঠী পূজা আর ৮ অক্টোবর বিসর্জন। কেন্দ্রীয় পূজা পরিষদের ঘোষণা অনুযায়ী রাত ১০টার মধ্যে দেবীর বিসর্জনের নির্দেশনা দেয়া হয়েছে।

বিভিন্ন এলাকা দেখা যায়, বাড়ির মন্দির, কালীবাড়ির মন্দির ছাড়াও জেলার গ্রামগুলোর বিভিন্ন মন্দিরে প্রতিমা ও পূজামন্ডপ তৈরির কাজ শেষের দিকে। কোথাও কোথাও প্রতিমায় একাধিকবার মাটির প্রলেপ দেয়া হয়েছে। ফলে মৃৎশিল্পীদের এখন আর দম ফেলার সময় নেই। পূজা উদযাপন পরিষদের সভাপতি বলেন, পূজা নির্বিঘ্নে সম্পন্ন করতে সব ধরনের প্রস্তুতি নেয়া হয়েছে। এরই মধ্যে সকল মন্ডপের কাজ প্রায় শেষ হয়েছে। কিছু কিছু মন্ডপ সাজানোর কাজ চলছে। আশা করছি ধর্ম-বর্ণ নির্বিশেষে সকলের সহযোগিতায় সুন্দর ও সফলভাবে দুর্গা উৎসব সম্পন্ন করা যাবে। এদিকে, শান্তিপূর্ণভাবে পূজা সম্পন্ন করতে মন্ডপগুলোতে তিন স্তরের নিরাপত্তা ব্যবস্থা গ্রহণ করেছে প্রশাসন।


পূজা উপলক্ষে মন্ডপ এলাকায় তিনস্তরের নিরাপত্তা বেষ্টনি থাকছে। পুলিশের পাশাপাশি আনসার ভিডিপি ও সাদা পোশাকে পুলিশ সদস্য নিরাপত্তা দায়িত্বে থাকবেন। এদিকে মাদক বিক্রি এবং পূজা উপলক্ষে বিভিন্ন মন্ডপে আয়োজিত মেলায় জুয়া খেলার কোন সুযোগ নেই। আইন সৃঙ্খলা পরিস্থিতির অবনতি ঘটলে সাথে সাথে পুলিশ কে বিষয় টি অবগত করার জন্য সকল কে আহবান জানান। নড়াইল জেলার পূজা মন্ডপের সভাপতি ও সাধারন সম্পাদকসহ স্থানীয় গণ্যমান্য ব্যক্তিবর্গ প্রমূখ। এসময় নড়াইল জেলার পূজা মন্ডপের সভাপতি ও সাধারন সম্পাদকদের পূজা মন্ডপ নিয়ে বিভিন্ন সমস্যার কথা তুলে ধরেন। নড়াইল ফ্যায়ার সার্ভিসের কর্মকর্তা বলেন,নড়াইল জেলার সকল পূজা মন্ডপের দিকে আপনারা নিজেরা নিজ দায়ীত্বে পালন করবেন,এবং আপনাদের জন্য আমাদের ফ্যায়ার সার্ভিসের এ্যাম্বুলেন্স ও মটোরসাইকেল টিম সব সময় সর্বদা দেখা সোনা করবেন।

পুলিশ সুপার (এসপি) মোহাম্মদ জসিম উদ্দিন পিপিএম (বার)’র তার বক্তত্বে বলেন, এবার নড়াইল সদর, ২৫৮ পূজা মন্ডপ, নড়াইলের লোহাগড়া থানায়, ১৫৫ পূজা মন্ডপ, নড়াইলের কালিয়া থানায়,৮৪ পূজা মন্ডপ ও নড়াইলের নড়াগাতী থানায়,৫৮ পূজা মন্ডপ সর্বমোট,৫৫৫ টি পূজা মন্ডপে শারদীয় দূর্গা পূজার অনুষ্ঠান অনুষ্ঠিত হতে যাচ্ছে। পূজা মন্ডপের সভাপতি ও সাধারন সম্পাদকদের উদ্দেশে বলেন,আপনাদের শারদীয়া দূর্গা পূজার অনুষ্ঠান ঘিরে নড়াইল জেলা পুলিশ ও আনসার বাহিনী সর্বদা সব সময় নজরদারী করবে। ধর্ম যার যার উৎসব সবার,আমরা সবাই নিয়ম শিংক্ষলা বজায় রেখে এ উৎসব করবো। কোন প্রকার অপত্তিকর ঘটনা ঘটালে সাথে সাথে নিকটস্থ থানায় খবর দিবেন,কেউ আইন নিজ হাতে তুলে নিবেন না,আইন সবার জন্য সমান, পুলিশ জনগনের বন্ধু,আপনারা পুলিশ কে তথ্য দিয়ে সহযোগিতা করুন।

আপনার মুল্যবান মতামত দিন......

comments



যোগ্যতাই যখন বড় অযোগ্যতা

প্রধান কার্যালয়ঃ বঙ্গবন্ধু সড়ক, আধুনিক সদর হাসপাতাল সংলগ্ন, বাসস্ট্যান্ড, ঠাকুরগাঁও-৫১০০
বার্তা বিভাগ-01763234375 অথবা 01673974507, ইমেইল- sangbadgallery7@gmail.com

2012-2016 কপি রাইট আইন অনুযায়ী সংবাদ-গ্যালারি.কম এর কোন সংবাদ ছবি ভিডিও কর্তৃপক্ষের অনুমতি ছাড়া অন্য কোথায় প্রকাশ করা আইনত অপরাধ

Development by: webnewsdesign.com