পরমাণু চুক্তি বাদ দিলে ট্রাম্পকে পস্তাতে হবে: ইরান

সোমবার, ০৯ এপ্রিল ২০১৮ | ৬:১২ অপরাহ্ণ |

পরমাণু চুক্তি বাদ দিলে ট্রাম্পকে পস্তাতে হবে: ইরান
পরমাণু চুক্তি বাদ দিলে ট্রাম্পকে পস্তাতে হবে: ইরান

ইরানের সঙ্গে পরমাণু চুক্তি থেকে বের হয়ে আসলে যুক্তরাষ্ট্রকে পস্তাতে হবে বলে সতর্ক করে দিয়েছেন দেশটির প্রেসিডেন্ট হাসান রুহানি। সোমবার তিনি বলেন, এর প্রতিক্রিয়ায় ইরানের পদক্ষেপ মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের ভাবনার চেয়ে কঠোর হবে। ব্রিটিশ বার্তা সংস্থা রয়টার্স এ খবর জানিয়েছে।২০১৫ সালে জয়েন্ট কমপ্রিহেনসিভ প্ল্যান অব অ্যাকশন-জেসিপিওএ’র আওতায় ইরানের বিরুদ্ধে নিষেধাজ্ঞা তুলে নেয় ‍যুক্তরাষ্ট্র। আগামী ১২ মে ট্রাম্প চুক্তিটি নতুন করে নবায়ন না করলে নিষেধাজ্ঞাগুলো আবার কার্যকর হবে। ইউরোপিয়ান শক্তিগুলোকে ওই চুক্তির ‘ভয়ংকর ত্রুটিগুলো ঠিক করতে’ ওই তারিখ পর্যন্ত সময় বেঁধে দিয়েছেন তিনি।রাষ্ট্রীয় টেলিভিশনে সরাসরি প্রচারিত এক বক্তব্যে হাসান রুহানি বলেন, যুক্তরাষ্ট্রের নতুন প্রেসিডেন্টের কথা ও কাজের মধ্যে অনেক গরমিল রয়েছে। তিনি ১৫ মাস ধরে জেসিপিওএ ভাঙার চেষ্টা করে আসছেন। কিন্তু জেসিপিওএ’র কাঠামো এতো শক্তিশালী যে, এমন ঝাঁকিতে তা নড়বে।

তিনি আরও বলেন, ইরান পরমাণু চুক্তি ভঙ্গ করবে না। কিন্ত যদি যুক্তরাষ্ট্র চুক্তিটি বাতিল করে তাহলে তাদের নিশ্চিত পস্তাতে হবে। এর প্রতিক্রিয়ায় আমাদের পদক্ষেপ তাদের কল্পনার চেয়ে কঠিন হবে। আর তারা মাত্র এক সপ্তাহের মধ্যে তা দেখতে পারবে।ইরান সতর্ক করে দিয়ে বলেছে, জেসিপিওএ ব্যর্থ হলে চুক্তি আগের চেয়ে আরও উন্নত পর্যায়ের পরমাণূ কর্মসূচি চালু করবে তারা। দেশটির জাতীয় পরমাণু প্রযুক্তি দিবস উপলক্ষে এই বক্তব্য দেন প্রেসিডেন্ট রুহানি। সে সময় তিনি পরমানু ব্যাটারি ও তেল শিল্পের জন্য সেন্ট্রিফিউজ তৈরিসহ দেশটির সর্বশেষ পরমাণু বিষয়ে সফলতার ঘোষণা দেন।   হাসান রুহানি বলেন, ইরান সম্ভাব্য যেকোনও পরিস্থিতির জন্যই প্রস্তুত রয়েছে। যুক্তরাষ্ট্রকে বাদ দিয়ে জেসিপিওএ চুক্তিতে থাকতেও রাজি আছে দেশটি। সেখানে ইউরোপিয়ান দেশগুলোসহ চীন ও রাশিয়া থাকবে। অথবা কোনও চুক্তি না থাকলে কী হবে তার জন্যও প্রস্তুত তারা।ইরানের বিরুদ্ধে নতুন নিষেধাজ্ঞা আরোপে ফ্রান্স, ব্রিটেন ও জার্মানি তাদের ইউরোপীয় অংশীদারদের রাজি করার চেষ্টা করছে। মূলত ইরানের সঙ্গে পরমাণু চুক্তি থেকে না সরে যেতে ট্রাম্পের ওপর চাপ সৃষ্টির জন্য এই উদ্যোগ নেওয়া হয়। চুক্তি অনুযায়ী নিষেধাজ্ঞা থেকে মুক্তির বিনিময়ে পরমানু কর্মসূচি বন্ধ রেখেছে ইরান। ইউরোপের নতুন নিষেধাজ্ঞা মধ্যে পরমাণু চুক্তির আওতায় প্রত্যাহার করা পদক্ষেপগুলো ফিরিয়ে আনা হবে। তবে কিছু ইরানি নাগরিকের ওপর নিষেধাজ্ঞাগুলো আরোপ করা হয়েছে। এসব ব্যক্তি দেশটির পরমানু কর্মসূচি ও সিরিয়ায় প্রেসিডেন্ট বাসার আল আসাদকে সহায়তায় কাজ করছে বলে মনে করা হয়।রুহানি বলেছেন, ইরানের ক্ষেপণাস্ত্র সক্ষমতা পুরোপুরিভাবে প্রতিরক্ষামূলক। তিনি বলেন, এই অস্থিতিশীল অঞ্চলে আমাদের দেশকে রক্ষা করার জন্য আমরা প্রয়োজনীয় সব অস্ত্র উৎপাদন করবো। কিন্তু আমাদের প্রতিবেশিদের ওপর এসব অস্ত্র ব্যবহার করবো না।  ট্রাম্পের পুনরায় নিষেধাজ্ঞা আরোপের হুমকির কারণে ইরানের মুদ্রার দাম সোমবার আরো একধাপ কমেছে। তেহরানে মার্কিন ডলারের দাম একদিনের ৫৪ হাজার ৭০০ রিয়াল থেকে বেড়ে ৫৮ হাজার রিয়াল হয়েছে। গত সেপ্টেম্বরের মাঝামাঝিতেও এর দাম ছিল ৩৬ হাজার রিয়াল।

webnewsdesign.com

আপনার মুল্যবান মতামত দিন......

comments

প্রধান কার্যালয়: শিমুল লজ, ১২/চ/এ/২/৪ (২য় তলা), রোড নং ৪, শেরেবাংলা নগর,শ্যামলী,ঢাকা‌.
বার্তা বিভাগ-01763234375 অথবা 01673974507, ইমেইল- sangbadgallery7@gmail.com

আঞ্চলিক কার্যালয়: বঙ্গবন্ধু সড়ক, আধুনিক সদর হাসপাতাল সংলগ্ন, বাসস্ট্যান্ড, ঠাকুরগাঁও-৫১০০

2012-2016 কপি রাইট আইন অনুযায়ী সংবাদ-গ্যালারি.কম এর কোন সংবাদ ছবি ভিডিও কর্তৃপক্ষের অনুমতি ছাড়া অন্য কোথায় প্রকাশ করা আইনত অপরাধ

Development by: webnewsdesign.com