পাড়িয়া সীমান্তে বিএসএফ’র অতর্কিত গুলিবর্ষণে এলাকাবাসী আতঙ্ককিত হয়ে নিরাপদ স্থানে আশ্রয় গ্রহন

বৃহস্পতিবার, ০৮ ফেব্রুয়ারি ২০১৮ | ১১:১৩ পূর্বাহ্ণ |

পাড়িয়া সীমান্তে বিএসএফ’র অতর্কিত গুলিবর্ষণে এলাকাবাসী আতঙ্ককিত হয়ে নিরাপদ স্থানে আশ্রয় গ্রহন
প্রতিক ছবি

ঠাকুরগাঁওয়ের বালিয়াডাঙ্গী উপজেলার পাড়িয়া কোম্পানির সদর দপ্তর ক্যাম্পের সীমান্তের ওপারে ভারতীয় বারঘরিয়া ক্যাম্পের টহলরত বিএসএফ সদস্যদের অতর্কিত গুলিবর্ষণে সীমান্ত এলাকার কয়েকটি গ্রামের মানুষ আতঙ্ককিত হয়ে নিরাপদ স্থানে ছুটে গিয়ে আশ্রয় নেয়।
এলাকাবাসীর সূত্রে জানা গেছে, বালিয়াডাঙ্গী উপজেলার পাড়িয়া কোম্পানির সদর দপ্তর ক্যাম্পের ৩৮৭ মেইন পিলারের ৬ সাব পিলারের নিকট গত মঙ্গলবার ভোর রাতে কোন কারন ছাড়াই ভারতীয় উত্তর দিনাজপুর জেলার ইসলামপুর থানার অন্তর্গত বারঘরিয়া ক্যাম্পের টহলরত বিএসএফ সদস্যরা বাংলাদেশের দিকে লক্ষ করে অতর্কিতভাবে ৬-৭ রাউন্ড ফাঁকা গুলিবর্ষণ করে। এতে সীমান্ত এলাকার স্বরাগন্ধি, তিলগড়া, আঠিয়াবাড়ী, রাঙ্গামাটিসহ কয়েকটি গ্রামের মানুষ আতঙ্ককিত হয়ে ছুটাছুটি করে নিরাপদ স্থানে আশ্রয় নেয়।
এ ব্যাপারে ঠাকুরগাঁও ৫০ বিজিবি ব্যাটালিয়নের অধীনে পাড়িয়া কোম্পানির সদর দপ্তর ক্যাম্পের কোম্পানী কমান্ডার সুবেদার এম.এ বারী এই প্রতিবেদককে ঘটনাটি অস্বীকার করে বলেন, সীমান্ত এলাকায় এ ধরনের কোন ঘটনা ঘটেনি। অপরদিকে, এলাকাবাসীদের নিকট খোঁজ নিয়ে জানা গেছে, ভারতীয় উত্তর দিনাজপুর জেলার ইসলামপুর থানার অন্তর্গত বারঘরিয়া ক্যাম্পের টহলরত বিএসএফ সদস্যরা কোন কারন ছাড়াই গতকাল রাত ২ টায় বাংলাদেশের দিকে লক্ষ করে অতর্কিতভাবে ৬-৭ রাউন্ড ফাঁকা গুলিবর্ষণের ঘটনা ঘটেছে। উল্লেখ্য যে, গত ১ ও ২ ফেব্রুয়ারি রাতে ওই সীমান্ত এলাকায় কয়েক রাউন্ড ফাঁকা গুলি বর্ষণ করে। এতে কোন হতাহতের ঘটনা ঘটেনি। এ নিয়ে সীমান্তবাসীরা আতঙ্কের মধ্যে দিনযাপন করছে।


webnewsdesign.com

আপনার মুল্যবান মতামত দিন......

comments

প্রধান কার্যালয়: শিমুল লজ, ১২/চ/এ/২/৪ (২য় তলা), রোড নং ৪, শেরেবাংলা নগর,শ্যামলী,ঢাকা‌.
বার্তা বিভাগ-01763234375 অথবা 01673974507, ইমেইল- sangbadgallery7@gmail.com

আঞ্চলিক কার্যালয়: বঙ্গবন্ধু সড়ক, আধুনিক সদর হাসপাতাল সংলগ্ন, বাসস্ট্যান্ড, ঠাকুরগাঁও-৫১০০

2012-2016 কপি রাইট আইন অনুযায়ী সংবাদ-গ্যালারি.কম এর কোন সংবাদ ছবি ভিডিও কর্তৃপক্ষের অনুমতি ছাড়া অন্য কোথায় প্রকাশ করা আইনত অপরাধ

Development by: webnewsdesign.com