রাজশাহীতে জাল টাকা তৈরির কারখানায় ১১ লাখ রুপিসহ গ্রেফতার-১

শনিবার, ০৮ সেপ্টেম্বর ২০১৮ | ৯:৩০ পূর্বাহ্ণ |

রাজশাহীতে জাল টাকা তৈরির কারখানায় ১১ লাখ রুপিসহ গ্রেফতার-১
প্রতীকী ছবি

রাজশাহী প্রতিনিধি: রাজশাহীতে ভারতীয় জাল রুপি তৈরির একটি কারখানার অভিযান চালিয়েছে র‌্যাব। এ সময় ওই কারখানা থেকে ১১ লাখ ভারতীয় জাল রুপি জব্দ ছাড়াও জাল রুপি তৈরির মেশিনসহ নানা সরঞ্জামাদিও উদ্ধার করা হয়। গত বৃহস্পতিবার রাতে ঢাকা থেকে র‌্যাব-২ এর একটি দল গিয়ে ওই কারখানায় অভিযান চালায়।

নগরের বোয়ালিয়া থানার বেলদারপাড়া এলাকার একটি বাড়িতে এই কারখানা গড়ে তোলা হয়েছিল। এ সময় বাড়ির মালিক দরদুজ্জামান বিশ্বাস ওরফে জামানকে (৫৭) গ্রেপ্তার করা হয়। দরদুজ্জামান কারখানা হিসেবে তার নিজ বাড়িকে ব্যবহার করতেন। পরে র‌্যাবের পক্ষ থেকে একটি মামলা দিয়ে থানায় হস্তান্তর করা হয় বলে জানিয়েছেন বোয়ালিয়া থানার ওসি আমান উল্লাহ।

webnewsdesign.com

র‌্যাব ও পুলিশের সূত্র বলছে, দরদুজ্জামান দেশে ভারতীয় জাল রুপি তৈরির মূলহোতা। এর আগেও একাধিকবার আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর হাতে ধরা পড়েছিলেন। সর্বশেষ গেল জানুয়ারিতে রাজশাহী থেকেই তাকে গ্রেপ্তার করেছিল ঢাকা মহানগর পুলিশের গোয়েন্দা শাখা (ডিবি)। তার কাছ থেকে বিপুল পরিমাণ জাল রুপি ছাড়াও ল্যাপটপ, প্রিন্টার মেশিন, লেমিনেটিং মেশিন, হ্যালোজেন লাইট, স্ক্যানিং করার প্রিন্টার ফ্রেম, কাগজ, বিভিন্ন ধরনের কার্টিজ জব্দ করা হয়েছিল।

এরপর বেশ কিছুদিন কারাগারে ছিলেন দরদুজ্জামান। মাসখানেক আগে জামিন পান। ঢাকায় তার চক্রের সদস্যরা ধরা পড়ায় দরুজ্জামান জাল রুপি তৈরির কার্যক্রম রাজশাহী মহানগরীর এই নিজের বাড়িতেই শুরু করেছিলেন। দরুজ্জামানের গ্রামের বাড়ি চাঁপাইনবাবগঞ্জের শিবগঞ্জ উপজেলার শেখতোলায়। বাবার নাম রহিদুল ইসলাম।

র‌্যাব সূত্রে জানা গেছে, বারবার গ্রেপ্তার হলেও জাল রুপি তৈরি করে তা বাজারে ছড়িয়ে দিয়ে প্রতারণা করেন দরদুজ্জামান। তিনি বাংলাদেশে ভারতীয় জাল রুপি তৈরির ‘গুরু’ হিসেবেও পরিচিত। তিনি ১৫ হাজার টাকার বিনিময়ে এক লাখ ভারতীয় জাল রুপির বান্ডিল বিক্রি করতেন। এভাবে তিনি বিপুল সম্পদের মালিক হয়েছেন।

দরুদুজ্জামানের সম্পর্কে আরো জানা যায়, তিনি ১৯৮৮ সাল থেকে বাংলাদেশি জাল টাকা এবং ভারতীয় জাল রুপি তৈরি করে আসছেন। তার চক্রটি ভারতের সীমান্তবর্তী এলাকায় জাল রুপি সরবরাহ করে। আর তিনি বরাবরই থাকেন আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর ‘মোস্ট ওয়ানটেড’ তালিকায়। তার নামে তিনটি মামলা আগে থেকেই ছিল। সর্বশেষ র‌্যাবের হাতে গ্রেপ্তার হওয়ার ঘটনায় আরও একটি মামলা হয়েছে।

নগরের বোয়ালিয়া থানার ওসি আমান উল্লাহ বলেন, গত বৃহস্পতিবার গভীর রাতে র‌্যাব দরদুজ্জামানকে জাল রুপি ও রুপি তৈরির নানা সরঞ্জামসহ থানায় হস্তান্তর করে। এ সময় প্রচলিত ধারায় তার বিরুদ্ধে র‌্যাবের পক্ষ থেকে একটি মামলাও করা হয়। শুক্রবার সকালে আসামিকে আদালতের মাধ্যমে কারাগারে পাঠানো হয়েছে।

আপনার মুল্যবান মতামত দিন......

comments

অভিনব পদ্ধতিতে পাচার কালে ১৫টি মোবাইল উদ্ধার…

প্রধান কার্যালয়: শিমুল লজ, ১২/চ/এ/২/৪ (২য় তলা), রোড নং ৪, শেরেবাংলা নগর,শ্যামলী,ঢাকা‌.
বার্তা বিভাগ-01763234375 অথবা 01673974507, ইমেইল- sangbadgallery7@gmail.com

আঞ্চলিক কার্যালয়: বঙ্গবন্ধু সড়ক, আধুনিক সদর হাসপাতাল সংলগ্ন, বাসস্ট্যান্ড, ঠাকুরগাঁও-৫১০০

2012-2016 কপি রাইট আইন অনুযায়ী সংবাদ-গ্যালারি.কম এর কোন সংবাদ ছবি ভিডিও কর্তৃপক্ষের অনুমতি ছাড়া অন্য কোথায় প্রকাশ করা আইনত অপরাধ

Development by: webnewsdesign.com